শুক্রবার | ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১৭ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি | রাত ৩:০৯
Home / আন্তর্জাতিক / লকডাউন তুলে নেওয়াকে ঝুঁকি বলতে নারাজ ট্রাম্প

লকডাউন তুলে নেওয়াকে ঝুঁকি বলতে নারাজ ট্রাম্প

পর্দার আড়ালে ২৪.কম নিউজ ডেস্ক!!
অর্থনীতির চাকা সচল করতে গিয়ে লকডাউন তুলে এখনই অফিস,স্কুল,কলেজ খুলে দিলে ফল মারাত্মক হবে বলে সতর্ক করেছিলেন মার্কিন সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ অ্যান্টনি ফসি।

সেই বার্তা একেবারেই গ্রহণযোগ্য নয় বলে উড়িয়ে দিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।
প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের কথা, আমি ওর প্রস্তাবে বিস্মিত। এটা মোটেই মানা যায় না। বিশেষত স্কুলের ক্ষেত্রে তো নয়ই।
মার্কিন মুল্লুকে ইতিমধ্যেই করোনার সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে প্রায় ৮৭ হাজার মানুষের।
সমগ্র বিশ্বে যা সর্বাধিক। এই অবস্থায় মার্কিন সরকারের উপদেষ্টা ফসির বক্তব্য ছিল, আগেভাগে লকডাউন তুলে নিলে মৃত্যুমিছিল আরও লম্বা হবে। যা মোটেই গ্রহণযোগ্য বলে মনে হয়নি প্রেসিডেন্টের।

তার মতে, এখন একটি কাজই করা যায়, তা হল প্রবীণ শিক্ষক, শিক্ষিকাদের আগামী কয়েক সপ্তাহ ক্লাস নেওয়ার প্রয়োজন নেই। কিন্তু অল্পবয়স্ক পড়ুয়াদের স্কুল, কলেজে আসতে কোনও সমস্যা নেই। তার কথায়, পরিসংখ্যান দেখুন আপনারা, বাচ্চাদের কিন্তু কোনও ঝুঁকি নেই। এই রোগ বয়স্কদেরই আগে থাবা বসায়।

ট্রাম্প ইতিমধ্যেই বিভিন্ন প্রদেশগুলিকে লকডাউন তোলার ব্যাপারে উৎসাহ দিতে শুরু করেছেন। লকডাউন না তুলতে চেয়েই বরং সমালোচনার মুখে পড়ছেন গভর্নরেরা। আর এই সময়েই করোনা মোকাবেলায় মার্কিন সরকারের বিশেষ টাস্ক ফোর্সের শীর্ষে থাকা ফসি বলে বসেছেন, লকডাউন তুললে ভোগান্তি আর মৃত্যুই শুধু বাড়বে। আবার এও বলেছেন, অল্পবয়স্করা এই রোগের থেকে সম্পূর্ণ সুরক্ষিত এমন ভাবার কোনও কারণ নেই। তিনি এমনও জানিয়েছেন, সরকারি পরিসংখ্যানের তুলনায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আসল মৃত্যুর সংখ্যা অনেক বেশি।

ট্রাম্প অবশ্য সে কথায় কান না দিয়েই বলেছেন, আমরা বিধিনিষেধ মেনেই লকডাউন তুলব। কিন্তু আমাদের যত দ্রুত সম্ভব এই কাজ করতে হবে। স্কুলের বিষয়ে আমি ওর সঙ্গে একেবারেই একমত নই।

পোস্টটি শেয়ার করুন
Share

About admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

ব্লিনকেনকে উইঘুদের বন্দি শিবির ও নির্যাতন বন্ধের আহ্বান

সম্প্রতি জিনজিয়াংয়ে উইঘুদের প্রতি চীনের অমানবিক আচরণ ও গণহত্যা বলে স্বীকৃতি দিয়েছে ...